ঘাড়ের কাছে চুম্বন করে সিঁড়ি দিয়ে নেমে আসছিল। তা দেখে মুগ্ধ স্ত্রী। এবং নিমেষে চিনে নিলেন স্বামীকে। ‘স্ত্রী’র নাম খিম হাং। দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার কম্বোডিয়ার এই মহিলার ’য়স ৭৪ বছর। এই বয়সেও প্রেম ও রোম্যান্টিক অনুভূতিতে ভরপুর তিনি। তিনি যাকে স্বামী হিসেবে নিমেষে চিনে নিয়েছেন, তিনি কিন্তু মানুষ নন, এক আস্ত গরু। যে গরুর আচরণ দেখে খিমের তাকে নিজের প্রয়াত স্বামী হিসেবে চিনে নিতে বি’ন্দুমাত্র ভুল হয়নি।কী রকম আচরণ?খিমের বয়ান এরকম– ‘গরুটি আমার ঘাড়, চুলের কাছে এসে চেটে দিল। তারপর আমাকে আদর করে সিঁড়ি দিয়ে আমার পিছনে নামল। ঠিক যেমন আমার স্বামী कরতেন। তার পর থেকেই আমার মনে হচ্ছে, আমার মৃত স্বামীই গরু হয়ে আমার কাছে ফিরে এসেছেন।’খিমের স্বামী মারা গিয়েছেন গত বছর। এর মধ্যে একদিন একটি বাছুর খিমের মুখের কাছে মুখ এনে খিমকে ‘আদর করে’ (যে আদরকে প্রকারান্তরে ‘চুমু’) বলে দাবি খিমের। তারপর থেকেই খিমের কেন যেন মনে হচ্ছে, এই গরুই তাঁর মৃত স্বামী। তাঁর স্বামীরই পুনর্জন্ম হয়েছে গরুরূপে। তা মনে হওয়ায় আর দেরি করেননি তিনি। সটান विয়েও করে নিয়েছেন গরুকে। গ্রামবাসীরাও উপস্থিত হয়েছিলেন খিমের সঙ্গে গরুর ওই বিয়েতে।গরুটিকে বিয়ে করে নিজের ঘরেই তাকে রেখেছেন খিম। নিয়মিত স্নান করানো, খেতে দেওয়ার পাশাপাশি सব রকমের যত্ন নিচ্ছেন তিনি গরুটির। আরাম করে ঘুমানোর জন্য গরু-স্বামীর জন্য বালিশ-বিছানার ব্যবস্থাও করেছেন!

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published.